হাড়োয়ায় প্রাক্তন সভাপতির ডাকে প্রস্তুতি সভায় উপচে পড়া ভীড়

0
39

অর্ণব মৈত্রঃ বসিরহাট :বৃহস্পতিবার হাজার হাজার মানুষকে সঙ্গে নিয়ে বসিরহাটের হাড়োয়া মাজমপুর তৃণমূল কংগ্রেসের উদ্যোগে ব্রিগেড সমাবেশের প্রস্তুতি সভা অনুষ্ঠিত হল।উপস্থিত ছিলেন হাড়োয়া পঞ্চায়েত সমিতির সদস্য আব্দুল খালেক মোল্লা, সোনাপুকুর সংকর পুর পঞ্চায়েত প্রধান ফরিদ আলি জমাদ দার,মহসিন মোল্লা সহ অনেকে।

এইসমাবেশ থেকে বিভিন্ন বক্তারা বলেন, রাজস্থানে ভোকাট্টা হয়ে গিয়েছে বিজেপি। ছত্তিশগড়ে ধুয়েমুছে গিয়েছে। মধ্যপ্রদেশেও একই অবস্থা। বিজেপিকে মানুষ কিন্তু ভোট দেয়নি।

এরা একটা বিলাসবহুল বাস দিল্লি থেকে নিয়ে এসে বলছে, রথ বের করব। সেভেন স্টার বাস এনে, গাধাকে দেখিয়ে ঘোড়া বলা হচ্ছে।তারা আরো বলেন, তথ্য পরিসংখ্যানে আমাদের মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে ওদের সবকিছুর তুলনা হোক, কত ধানে কত চাল, তা পরিষ্কার হয়ে যাবে। মুখ্যমন্ত্রী যা যা প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন, তাই হয়েছে। ওরা বলেছিল, আচ্ছে দিন আনেবালে হ্যা। আর বাস্তাবে অর্থনৈতিক ধ্বংসের দিকে দেশকে ঠেলে দিয়েছে।

প্রফুল্ল ঘোষ, সিদ্ধার্থশঙ্কর রায়ের মতো ফুল টাইম মুখ্যমন্ত্রীরাও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মতো উন্নয়ন করতে পারেননি।

খালেক মোল্লা বলেন, সিপিএম যেভাবে বাংলাকে পিছিয়ে রেখেছিল, বিজেপি বাংলার কালো দিনগুলি ফিরিয়ে আনতে চাইছে। আমরা এর বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াব। যেভাবে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় উন্নয়ন করেছেন, আগামীদিনে তাঁর হাতকে আমাদেরই শক্তিশালী করতে হবে। যারা নিজেদের হিন্দু ধর্মের ধারক ও বাহক বলে দাবি করে, তারা হিন্দুদের জন্য কী কাজ করেছে? একটা কাজও করেনি। কোটি কোটি টাকা দুর্নীতি করেছে। আমরা বদ্ধপরিকর হিন্দু, মুসলমান, জৈন, খ্রিস্টান, সকলের জন্য কাজ করতে। দিলীপ ঘোষের নাম না করে তিনি বলেন, দুটো চারটে মিটিং করে হুংকার দিয়ে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় হওয়া যায় না।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here