তুহিন শুভ্র আগুয়ান;পূর্ব মেদিনীপুরঃপূর্ব মেদিনীপুর জেলার মহিষাদলে কনস্টেবল নব কুমার হাইতকে গুলি করে খুনের ঘটনায় অবশেষে মূল অভিযুক্ত কর্ণ বেরাকে আমৃত্যু যাবজ্জীবন সাজা ঘোষণা করলো হলদিয়া মহকুমা আদালত।এদিন কর্ণের সাথেসাথে তার সঙ্গী সেক রহীমকেও দশবছরের কারাদন্ডে দন্ডিত করেছে বলে জানা গেছে।

আদালত সূত্রে খবর,মূল অভিযুক্ত কর্ণ বেরাকে শনিবার ভারতীয় দন্ডবিধির ১৮৬/৩৪,৩৫৩,৩৩৩,৩০২ এবং অস্ত্র আইনের ২৫ ও ২৭ ধারায় দোষী সাব্যস্ত করেছিল আদালত।কিন্তু সোমবার এই মামলার সাজা ঘোষণার দিন ধার্য করে আদালত।তাই সোমবার আদালত কর্ণকে আমৃত্যু কারাদণ্ড ও ১৪হাজার টাকা জরিমানার অনাদায়ে অতিরিক্ত এক বছরের জেল হাজতের নির্দেশ দিয়েছে।

অপরদিকে কর্ণর সঙ্গী সেক রহিমকেও শনিবার আদালত ভারতীয় দন্ডবিধির ১৮৬/৩৪ এবং এক্সপ্লোসিভ সাবস্টেন্সের ৩ ধারায় দোষী সাব্যস্ত করেছিল।কিন্তু সোমবার সাজা ঘোষণার দিন ছিল।তাই এদিন আদালত সেক রহিমকে ১০ বছরের সশ্রম কাদাদন্ড ও ৩৫০০টাকা জরিমানা অনাদায়ে অতিরিক্ত ৬মাস জেল হেফাজতের নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

উল্লেখ, গত কয়েক বছর আগে রাতের অন্ধকারে কনস্টেবল নব কুমার হাইতিতে গুলি করে খুন করে কুখ্যাত দুষ্কৃতী কর্ণ বেরা।এরপর তাকে গ্রেপ্তার করা হলেও সে বহুবার জেল থেকে পালিয়ে যায় এমনকি কয়েকদিন আগে সে আদালত চত্বর থেকেও পালিয়ে যায়।এরপর তাকে পুলিশি ততপরতার গ্রেপ্তার করা হয়।এই ঘটনায় অভিযুক্ত কর্ণকে বৃহস্পতিবার হলদিয়া আদালতে রায়দানের জন‍্য পেশ করা হলেও আইনজীবী ও পুলিশের মধ‍্যে অসন্তোষে আদালতে কর্মবিরতি ঘোষনা করে আইনজীবী কর্তৃপক্ষ।এরপর শনিবার আবার আদালতে তোলা হলে  অভিযুক্ত কর্ণ ও তার সঙ্গী রহিমকে দোষী সাব্যস্ত করে আদালত।এরপর সোমবার আদালত এই দুই অভিযুক্তদের সাজা ঘোষণা করে।এদিন সাজা ঘোষণার পর কর্ণ বারেবারে ভেঙে পড়ে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here