বহরমপুরে বসে মুখ খুললেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীররঞ্জন চৌধুরি # বিদ্রোহ তো হবেই # আর সে বিদ্রোহের শিকড়বাকড় বহুদূর যাবে # বাংলায় তৃণমূলের রাজনৈতিকভাবে শক্তিবৃদ্ধির পিছনে শুভেন্দু অধিকারির ভূমিকা উল্লেখযোগ্য # এখন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে প্রোমোট করার জন্য মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শুভেন্দু অধিকারিকে ছেঁটে ফেলতে চাইছেন

0
125

নিজস্ব সংবাদদাতা # এ তো কিছুই নয়। এই বিদ্রোহ বহুদূর যাবে। আগামীদিনে দিদির পার্টি বাংলায় থাকবে না। বহরমপুরে বসে হুঁশিয়ারি দিলেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি অধীররঞ্জন চৌধুরি। একইসঙ্গে এদিন তিনি মুখ খুললেন শুভেন্দু  চৌধুরি প্রসঙ্গে।

অধীর চৌধুরি বলেন………

১) বাংলায় তৃণমূলের রাজনৈতিকভাবে শক্তিবৃদ্ধির পিছনে শুভেন্দু অধিকারির ভূমিকা উল্লেখযোগ্য।

২) নন্দীগ্রামের মানুষের অধিকারি পরিবারের প্রতি আস্থা রয়েছে।

৩) রাজনৈতিক পালাবদল ও মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উত্থানের পিছনে সিঙ্গুর ও নন্দীগ্রাম একটা বড় ফ্যাক্টর হিসেবে কাজ করেছিল।

৪) আর সেখানে নন্দীগ্রামে সবথেকে বড় ভূমিকা পালন করেছিলেন শুভেন্দু অধিকারি তথা অধিকারী পরিবার। অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে সেখানে দেখা যায়নি।

৫) কিন্তু এখন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়কে প্রোমোট করার জন্য মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শুভেন্দু অধিকারীকে ছেঁটে ফেলতে চাইছেন ।

৬) আমাকে হারানোর জন্যই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শুভেন্দু অধিকারিকে মুর্শিদাবাদে নিয়োগ করেছিলেন।

৭) মুর্শিদাবাদ জেলায় এসে সাম্প্রদায়িক রাজনীতি করে তাঁরা কংগ্রেসকে দুর্বল করার চেষ্টা করেছেন।

৮) আজ সবাই হাড়ে হাড়ে টের পারছেন যে দিদি আসলে কী!

৯) বিদ্রোহ তো হবেই। আর সে বিদ্রোহের শিকড়বাকড় বহুদূর যাবে।

১০) দিদির পার্টি এই বাংলায় থাকবে না আগামীদিনে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here