কৃষি আইন বাতিলের দাবিতে কৃষক সংগঠনের পক্ষ থেকে সুপ্রিম কোর্টে মামলা করার সিদ্ধান্ত # ২ সপ্তাহ ধরে রাস্তা আটকে বিক্ষোভ সমাবেশের পর পাঞ্জাবের কৃষকদের বোধদয় # করোনা আবহে কৃষক সমাবেশের বিরুদ্ধে মহামারী আইন লাগু করল দিল্লি পুলিশ

0
40

# বেঙ্গল ওয়াচের জন্য কলম ধরলেন বিশিষ্ট সাংবাদিক শ্যামলেন্দু মিত্র #

 

।।।।।।।।।।। শ্যামলেন্দু মিত্র।।।।।।।।।।।।।

 

২ সপ্তাহ পর পাঞ্জাবের কৃষকদের বোধদয় হল।

 

কৃষি আইন বাতিলের দাবিতে কৃষক সংগঠনের পক্ষ থেকে সুপ্রিম কোর্টে মামলা করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হল।

 

দিল্লির কৃষক বিক্ষোভ দু’সপ্তাহ অতিক্রম করেছে।

 

এর মধ্যে কেন্দ্রীয় সরকার ও বিক্ষোভরত কৃষক সংঠনগুলির মধ্যে ৬ দফা বৈঠক হয়েছে।

 

কিন্তু সমস্যা মেটেনি।

 

বিতর্কিত  কৃষি আইন বাতিলের দাবিতে অনড় কৃষক সংঠনগুলি।

 

কৃষকদের অভিযোগ, অবস্থান-আন্দোলনে কর্ণপাত করছে না সরকার।

 

তাই এবার ৩টি বিতর্কিত কৃষি আইন বাতিলের দাবিতে সুপ্রিম কোর্টের দ্বারস্থ হচ্ছে কৃষকদের একটি সংঠন।

 

এদিকে, সিঙ্ঘু সীমান্তে বিক্ষোভরত কৃষকদের বিরুদ্ধে পালটা পদক্ষেপ করেছে দিল্লি পুলিশও।

 

করোনা আবহে সামাজিক দুরত্ব না মানায় তাদের বিরুদ্ধে মহামারী আইনে দায়ের করা হয়েছে মামলা।

বৃহস্পতিবারই কৃষকদের একটি সংঠন জানিয়ে দিয়েছে, নির্দিষ্ট সময়সীমার মধ্যে সরকার আইন প্রত্যাহার না করলে তারা বৃহত্তর এবং কঠোরতর আন্দোলনে যাবেন।

 

প্রয়োজনে দেশজুড়ে স্তব্ধ করে দেওয়া হবে রেল পরিষেবা।

 

এই চরমপন্থার পাশাপাশি আইনি লড়াইয়ের রাস্তাও খোলা রাখছে কৃষকদের অন্যতম সংগঠন ভারতীয় কিষাণ ইউনিয়ন ।

 

তারাই ঘোষণা করেছে, বিতর্কিত তিন আইনকে চ্যালেঞ্জ করে সর্বোচ্চ আদালতে মামলা করা হবে।

 

ইতিমধ্যেই সুপ্রিম কোর্টে তিন কৃষি আইন বাতিলের দাবিতে ৬টি আবেদন জমা পড়েছে।

 

গত ১২ অক্টোবর এই সংক্রান্ত মামলার শুনানিতে কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে জবাবও চেয়েছে সর্বোচ্চ আদালত

 

দিল্লি পুলিশের অভিযোগ, বিক্ষোভরত ওই কৃষকরা সামাজিক দুরত্ব মানছেন না। যা করোনা পরিস্থিতিতে বিপজ্জনক।

 

৭ ডিসেম্বর দিল্লির আলিপুর থানায় এই সংক্রান্ত মামলাটি দায়ের হয়েছে।

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here